আজ-  ,
basic-bank
সংবাদ শিরোনাম :

কুমিল্লায় ৬ বছরের শিশুকে ধর্ষণ; বিচারের দাবি সৃষ্টি হিউম্যান রাইটস সোসাইটির

নিজস্ব প্রতিনিধি ; কুমিল্লার লালমাই উপজেলায় ৬ বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। শিশুটিকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

অভিযুক্ত লম্পট শহিদুলকে (৪৫) গ্রেফতার করেছে পুলিশ । আর এ ঘটনায় লম্পটের বিচারের দাবি জানিয়েছে মানবাধিকার সংস্থা ও এনজিও সৃষ্টি হিউম্যান রাইটস সোসাইটি এবং ভিক্টিম শিশুকে আইনি ও চিকিৎসা সেবার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে সংস্থাটি।

১০ জুন সোমবার বিকেলে উপজেলার ছোট শরিফপুরের ভুশ্চি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

লম্পট শহিদুল একই গ্রামের কাসেম মেম্বারের ছোট ভাই।

জানাযায়, লম্পট শহিদুল ও শিশুটির বাড়ি পাশাপাশি। সোমবার বিকেল ৪টার দিকে শিশুটি তার বান্ধবিদের নিয়ে খেলা করছিলো । এ সময় খেজুরের প্রলোভন দেখিয়ে শিশুটিকে কৌশলে নিজের ঘরে নিয়ে ধর্ষণ করে শহিদুল।

এক পর্যায়ে শিশুটি ব্যথায় ও রক্তক্ষরণে অসুস্থ হয়ে পড়লে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

লালমাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বদরুল আলম তালুকদার বলেন, শিশুটির ঘটনা শুনা মাত্রই ফোর্স পাঠিয়ে লম্পট শহিদুলকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশের পক্ষ থেকে শিশুর পরিবারকে যাবতীয় সহায়তা দেওয়া হচ্ছে।

সৃষ্টি হিউম্যান রাইটস সোসাইটি চেয়ারম্যান আনোয়ার -ই-তাসলিমা বলেন, ৬ বছরের শিশুকে ধর্ষণকারী অই লম্পটের এমন শাস্তি হওয়া দরকার, যাতে আর কেউ এমন জঘন্য অপরাধ করার সাহস না পায়। আমাদের সংস্থার পক্ষ থেকে শিশুকে চিকিৎসা ও আইনি সেবা দেওয়া হবে। এবং সংস্থার পক্ষ থেকে অই পরিবারের সাথে প্রতিনিয়ত খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, লালমাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার চৌকস অভিযানে লম্পট শহিদুলকে গ্রেফতার করা হয়েছে ।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।