পরাজয় নিয়েই মাঠ ছাড়ল ব্রাজিল

কোপা আমেরিকার ফাইনালে ৩-১ গোলে পেরুকে হারিয়ে নবমবারের মত চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল ব্রাজিল। মাত্র কিছুদিন আগের কথা সেটি। এরপর এই প্রথম মুখোমুখি দুই দেশ। এবার আমেরিকার লস এঞ্জেলেসে শেষ মুহূর্তের গোলে ব্রাজিলকে পরাজিত করে কোপার ফাইনালে হারের ক্ষতে কিছুটা হলেও প্রলেপ দিতে পেরেছে পেরুভিয়ান ফুটবলাররা।

পেরুর বিপক্ষে ম্যাচের ৮৫ মিনিট পর্যন্ত গোল হজম করতে হয়নি। শেষ মুহূর্তে এসে গোল হজম করে ফেলেলো সেলেসাওরা। এই গোলের পরাজয় নিয়েই মাঠ ছাড়তে হলো ব্রাজিলকে।

মাঠে নামার আগেই ব্রাজিল কোচ তিতে বলে দিয়েছিলেন, পেরুর বিপক্ষে একটু ভিন্ন টেস্ট নিতে চান। সামনেই বিশ্বকাপের বাছাই পর্ব। সে কারণে তিনি চান ব্রাজিলের রিজার্ভ বেঞ্চের পরীক্ষা নিতে। এ কারণে নেইমারকে খেলাননি। মাঠে নামাননি দুই সেরা ডিফেন্ডার দানি আলভেজ এবং থিয়াগো সিলভাকেও। মূল গোলরক্ষক অ্যালিসন তো দলেই ছিলেন না।

রবার্তো ফিরমিনো, রিচার্লিসন এবং ডেভিড নেরেসকে দিয়ে আক্রমণভাগ সাজান তিতে। মাঝ মাঠে কৌতিনহো এবং ক্যাসেমিরোর সঙ্গে ছিলেন অ্যালেন। অ্যাডার মিলিতাও, মার্কুইনহোস, অ্যালেক্স সান্দ্রো এবং ফ্যাগনাররা ছিলেন ডিফেন্সে।

তাতে কিছুটা এলোমেলোই লেগেছে ব্রাজিল ফুটবলকে। পেরুর বিপক্ষে প্রথমার্ধে কিছু বিচ্ছিন্ন আক্রমণছাড়া চোখে পড়ার মত কিছুই করতে পারেনি ৫ বারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা। দ্বিতীয়ার্ধে এসেও প্রায় একই অবস্থা। উল্টো ম্যাচের শেষ দিকে এসে, ৮৫ মিনিটে গোল হজম করে বসে নেইমাররা।

এ সময় ইয়োসিমার ইয়োতুনের ফ্রি-কিক থেকে নেয়া শটটি ভেসে আসে পোস্টের ওপর। সেখানেই দুর্দান্ত এক হেডে ব্রাজিলের জালে বল জড়িয়ে দেন পেরুর লুইস আব্রাম। এই গোল হজম করার পর সেটাকে ফিরিয়ে দিতে পারেনি আর ব্রাজিল।

অথচ ম্যাচের শেষের দিকে নেইমার, ভিনিসিয়াস জুনিয়র, ফ্যাবিনহো, ব্রুনো হেনরিক্সকে মাঠে নামিয়েও কাঙ্খিত ফল পাননি কোচ তিতে। 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

0 Shares
Share via
Copy link
Powered by Social Snap