ভারতে প্রাকৃতিক গ্যাস নয়, এলপিজি রপ্তানি করা হবে; প্রধানমন্ত্রী

ভারতে প্রাকৃতিক গ্যাস নয়, এলপিজি রপ্তানি করবে বলে জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, এ নিয়ে ভুল বোঝাবুঝির কোনো অবকাশ নেই।

বুধবার (৯ অক্টোবর) বিকেলে গণভবনে যুক্তরাষ্ট্র ও ভারত সফর পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে একথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

ভারতের কাছে গ্যাস বিক্রির সমালোচনার জবাবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, এলপিজি প্রাকৃতিক গ্যাস নয়, এটা বাংলাদেশে উৎপাদিত হয় না। বিদেশ থেকে এলপিজি এনে প্রক্রিয়াজাত করে ভারতে রপ্তানি করবো। এতে বরং আমাদের রপ্তানির তালিকায় নতুন একটি পণ্য যুক্ত হবে।

বাংলাদেশে বর্তমানে ২৬টি প্রতিষ্ঠান বিদেশ থেকে আমদানি করা এলপিজি ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত আছে এবং ১৮টি কোম্পানি নিজস্ব প্ল্যান্ট থেকে এলপিজি প্রক্রিয়াজাত করার সঙ্গে যুক্ত বলেও জানান প্রধানমন্ত্রী।

তিনি বলেন, আমদানি করা গ্যাস গ্রামে বিভিন্ন কোম্পানি সরবরাহ করছে। আগে ১০ কেজির সিলিন্ডার ১৬শ টাকা দাম পড়তো। বাজার উন্মুক্ত করে দেওয়ায় এখন ৯শ টাকা।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ত্রিপুরায় যে গ্যাসটা দিচ্ছি এটা কিন্তু সেই এলপিজি, বটল গ্যাস। আমরা আমদানি করছি বাল্কে, আমরা বোতলজাত করে নিজেদের দেশে যেমন সরবরাহ করছি, সেই গ্যাসই আমরা কিছু ত্রিপুরায় দিচ্ছি।

বঙ্গবন্ধুকন্যা বলেন, দেশের স্বার্থ শেখ হাসিনা বিক্রি করে দেবে এটা কখনও হতে পারে না।

বিএনপির সমালোচনা করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, যারা এর বিরোধিতায় সোচ্চার মানে, বিএনপি, ২০০১ সালের কথা মনে করিয়ে দিতে চাই। আজ যারা গ্যাস বিক্রি করে দিচ্ছে বলছে, তারাই গ্যাস দেবে বলে মুচলেকা দিয়ে ২০০১ সালে ক্ষমতায় এসেছিল বিএনপি-জামায়াত জোট।

তিনি বলেন, আমেরিকা গ্যাস বিক্রির জন্য বলেছিল, আমি বলেছিলাম দেশের চাহিদা মিটিয়ে আমরা তারপর বিক্রি করবো। যে কারণে ২০০১ সালে আমরা ক্ষমতায় আসতে পারিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

0 Shares
Share via
Copy link
Powered by Social Snap