ads
মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ০৭:৪৩ অপরাহ্ন

বাজারে ইলিশ থাকলেও কমছে না দাম

রিপোর্টারের নাম
  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ১৪ আগস্ট, ২০২০
  • ০ বার পঠিত

রাজধানীর বাজারে ইলিশের দাপট থাকলেও বেড়েছে দাম। সপ্তাহ ব্যবধানে পাইকারি পর্যায়েই কেজিতে দাম বেড়েছে ৫০ থেকে ১০০ টাকা পর্যন্ত। খুচরা বিক্রেতাদের অভিযোগ, এই মুহূর্তে মাছ বাজারে সবার মনোযোগ ইলিশে। এরই সুযোগ নিচ্ছে আড়তদাররা। অভিযোগ অস্বীকার করে যোগান কমের দোহাই আড়ৎদারদের।

সরকারি নিষেধাজ্ঞা শেষে পদ্মা ও মেঘনা নদীতে জেলেদের জালে ঝাঁকে ঝাঁকে ধরা পড়ছে রুপালি ইলিশ। জেলে আর স্থানীয় আড়তদারদের হাত ঘুরে তা আসছে রাজধানীর বাজারে।

শুক্রবার (১৪ আগস্ট) পাইকারি মাছের আড়ত সোয়ারিঘাটে গিয়ে দেখা গেলো, বরফজাত ইলিশ খালাসে ব্যস্ত আড়তের কর্মীরা। পাশেই চলছে আড়ৎদার আর খুচরা বিক্রেতাদের দর কষাকষি। ইলিশ কিনতে ভোরেই বাজারে এসেছেন ক্রেতারা। ৪০০ থেকে ৫০০ গ্রাম ওজনের ইলিশ বিক্রি হচ্ছে ৫০০-৬০০ টাকা কেজি দরে; এক কেজি ওজনের ইলিশ বিক্রি হচ্ছে এক হাজার থেকে ১১০০ টাকার মধ্যে।

এক ক্রেতা জানান, পাঁচটা ইলিশের ওজন হয়েছে সাত কেজি। দাম নিয়েছে সাত হাজার টাকা।

এক খুচরা বিক্রেতা জানান, আড়ৎদার থেকে ক্রেতারা ৮০০ টাকা করে মাছ কিনে নিয়ে যায়। এতে আমাদের কাছে ৭০০ টাকা করে তারা মাছ বিক্রি করে না। এই দামে কিনে বাজারে কত দামে বিক্রি করবো?

বাজারে ইলিশের ছড়াছড়ি দেখা গেলেও কেন কমছে না দাম? এমন প্রশ্নে আড়ৎদাররা বলছেন, চাঁদপুর, বরিশাল, চট্টগ্রামের মোকাম থেকে কমেছে ইলিশের যোগান। এতেই চড়েছে দাম।

তবে তুলনামূলক সহনীয় অন্যান্য মাছের দাম। চাপিলা প্রতিকেজি বিক্রি হচ্ছে ১২০ টাকায়; বাইম ৩০০ টাকায়; বোয়াল বিক্রি ৩০০-৩৫০ টাকা কেজি দরে।

সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর

Prayer Time Table

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৩:৫০
  • ১১:৫৯
  • ১৬:৩৪
  • ১৮:৪২
  • ২০:০৬
  • ৫:১২
ইঞ্জিনিয়ার মোঃ ওয়ালি উল্লাহ
নির্বাহী সম্পাদক
নিউজ রুম :০২-৯০৩১৬৯৮
মোবাইল: 01727535354, 01758-353660
ই-মেইল: editor@sristybarta.com
© Copyright 2023 - SristyBarta.com
Develop By : BDiTZone.com
themesba-lates1749691102