ফিলিস্তিনে ইসরাইলের দখলদারিত্ব বন্ধের আহ্বান দক্ষিণ আফ্রিকার

ফিলিস্তিনের ওপর ইসরাইলের অব্যাহত হামলার তীব্র নিন্দা প্রতিবাদ ও অবিলম্বে নিরীহ ফিলিস্তিনিদের ওপর দখলদার ইসরাইলি বাহিনীর হামলা বন্ধ করার আহ্বান জানিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার প্রেসিডেন্ট সিরিল রামাপোসা।

সোমবার প্রিটোরিয়ার প্রেসিডেন্টের দফতর থেকে গণমাধ্যম পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এই আহ্বান জানানো হয়।

দক্ষিণ আফ্রিকার প্রেসিডেন্ট বলেন, গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার, স্বাধীনতা ফিরে পাওয়ার যুদ্ধের অভিজ্ঞতা দক্ষিণ আফ্রিকার দীর্ঘদিনের। গণতন্ত্র ও স্বাধীনতা ফিরে পাওয়ার জন্য ফিলিস্তিনের নারী-পুরুষ দীর্ঘদিন থেকে দখলদার ইসরাইলের হামলার শিকার হয়ে প্রাণ দিয়ে আসছে। ইসরাইলের এসব দখলদারিত্বের বিরুদ্ধে দক্ষিণ আফ্রিকার সরকার এবং জনগণ সবসময়ই অবস্থান নিয়ে আসছে।

ইসরাইল এবং ফিলিস্তিনের ক্রমবর্ধমান পরিস্থিতি একমাত্র শান্তিপূর্ণ আলোচনার মাধ্যমে সম্ভব। এজন্য ইসরাইলকে আগে হামলা বন্ধ করতে হবে। আমরা নিশ্চিত করে বলতে পারি, হামলা করে ইসরাইল কোনোদিন সমাধানে পৌছাতে পারবে না।

প্রেসিডেন্ট আরো বলেন, ফিলিস্তিনের ভূমিতে ইসরাইলের অবৈধ দখল এবং ফিলিস্তিনি জনগণের আত্মমর্যাদা ফিরিয়ে না দিয়ে উল্টো অস্বীকার করলে কখনও শান্তি আসবে না। ফিলিস্তিনের নাগরিকদের তাদের দেশ থেকে, জন্মভূমি থেকে জোরপূর্বক তাড়িয়ে দেয়া এবং হত্যা করে একটি জাতিকে নির্মূল করার চেষ্টা দক্ষিণ আফ্রিকা কোনোদিন সমর্থন করবে না।

ইসরাইলি বাহিনী গত সপ্তাহে জেরুজালেমের আল আকসা মসজিদে হামলা চালিয়ে নামাজরত মুসল্লিদের হত্যা করেছে যা দক্ষিণ আফ্রিকা কোনোদিন সমর্থন করবে না।

প্রেসিডেন্ট সিরিল রামাপোসা বলেন, বিশ্বে যারা ন্যায়বিচার এবং মানবাধিকারে বিশ্বাসী তারা অবশ্যই ফিলিস্তিনি জনগণের পক্ষে দাঁড়াবে। ইসরায়েলের পদক্ষেপগুলি আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন। তারা ইউনাইটেড নেশনস সিকিউরিটি কাউন্সিলের (ইউএনএসসি) রেজুলিউশনগুলিতে ফিলিস্তিনিদের ভূমি দখল বন্ধ করার এবং ফিলিস্তিনি জনগণের অধিকার পূরণের দাবিকে সম্পূর্ণ অবজ্ঞা করে দখলদারিত্ব চালিয়ে যাচ্ছে।

পৃথিবীর সকল বিবেকসম্পন্ন দেশকে ফিলিস্তিনের জনগণের পক্ষে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার প্রেসিডেন্ট সিরিল রামাপোসা।

আরো পড়ুন