চিরকুট’সহ অভিনেত্রীর মরদেহ উদ্ধার

ভারতের উড়িষ্যার অভিনেত্রী রাশমিরেখা ওঝার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ২৩ বছর বয়সী এই তরুণী অভিনেত্রী ভুবনেশ্বরের নায়াপল্লী এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকতেন। সেই বাসা থেকেই মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে তার।

মঙ্গলবার (২০ জুন) ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়ার প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে এ তথ্য। তবে তার মৃত্যুর বিষয়টি খতিয়ে দেখছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

মাত্র চার বছর আগে টেলিভিশন ইন্ডাস্ট্রিতে অভিষেক হয় রাশমিরেখার। অভিষেকের পর প্রয় ১৫টি উড়িষ্যা অ্যালবাম, একটি সাবানের বিজ্ঞাপন এবং কেমিতি কাহিবি কাহা টিভি সিরিয়ালে অভিনয় করেছেন তিনি। আর পরিবারে চার ভাই-বোনের মধ্যে বড় ছিলেন তিনি।

এদিকে হঠাৎ করে তার মরদেহ উদ্ধারের এই ঘটনায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। বর্তমানে তার মরদেহের ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনের জন্য অপেক্ষা করা হচ্ছে।

দেশটির সিনিয়র টিভি অভিনেতা কৃষ্ণ কর জানিয়েছেন, আমি নির্বাক। রাশমিরেখা একজন উদীয়মান ও প্রতিভাবান অভিনেত্রী ছিলেন। তার প্রতিশ্রতিশীল ভবিষ্যৎ ছিল। দীর্ঘ পথ পাড়ি দেয়ার সুযোগ ছিল তার। আমি ভাবছি, কেন সে এমন পদক্ষেপ নিল। আমার মনে হয় বিষয়টি পুলিশের সঠিকভাবে তদন্ত করা উচিত।

উড়িষ্যা বাইটস সংবাদমাধ্যম এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, পুলিশ প্রাথমিক তদন্তে ধারণা করছে রাশমিরেখা আত্মহত্যা করেছেন। সেখান থেকে একটি চিরকুটও উদ্ধার করেছে তারা। তাতে লেখা রয়েছে, ‘আমার মৃত্যুর জন্য কেউ দায়ী নয়।

অভিনেত্রীর বাবা জানিয়েছেন, শনিবার রাশমিরেখাকে বারবার ফোন করার পরও রিসিভ করেনি। পরে সন্তোষ মৃত্যুর খবর জানায় আমাদের। তবে বাড়ির মালিকের কাছ থেকে জেনেছি, ওরা স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে ভাড়া থাকতো। কিন্তু এ বিষয়ে কোনো ধারণা নেই আমাদের।

আরো পড়ুন
error: সৃষ্টি বার্তা থেকে কপি করা যাবে না।