রাঙামাটিতে অনির্দিষ্টকালের অটোরিকশা ধর্মঘট চলছে

রাঙামাটি শহরে অটোরিকশা ভাঙচুরের ঘটনায় অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট পালন করছে অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন ও চালক কল্যাণ সমিতি।

রোববার (১৮ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকে ঘটনার প্রতিবাদ হিসেবে জেলা শহরে সব অটোরিকশা চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে।

এদিকে অটোরিকশা চলাচল বন্ধ থাকায় সাধারণ যাত্রী, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী এবং অফিসগামী জনগণ ভোগান্তিতে পড়েছেন।

দেশের একমাত্র রিকশাবিহীন শহর রাঙামাটিতে যোগাযোগের প্রধান মাধ্যম হলো অটোরিকশা। শহরের বাসিন্দাদের নির্ভরযোগ্য একমাত্র বাহনটি বন্ধ থাকায় যোগাযোগ ব্যবস্থা অচল হয়ে পড়েছে।

শনিবার দিনগত রাতে জেলা শহরের রাঙাপানি এলাকায় অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন ও চালক কল্যাণ সমিতির সদস্য চালক আবুল হোসেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুছা মাতব্বরের এলএনজি স্টেশন থেকে অটোরিকশায় গ্যাস রিফিল করে ফিরছিলেন। পথে গাড়িটি লক্ষ্য করে কয়েকটি পাথর ছোড়া হয়। এতে চালক আহত হন এবং গাড়িটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

এ ঘটনার পরপরই সংগঠনটির নেতৃবৃন্দ রোববার সকাল থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য অটোরিকশা চলাচল বন্ধ রাখার ঘোষণা দেয়।

এর আগে রাঙামাটি সদরের জীবতলী ইউনিয়নের আগরবাগান এলাকায় চাঁদার টোকেন না থাকায় একটি অটোরিকশা পুড়িয়ে দেয় দুর্বৃত্তরা। এ ঘটনার জন্য চালক সমিতি পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি (পিসিজেএসএস) সন্তু গ্রুপকে দায়ী করেছে। একই দিন বিকেলে চালক সমিতির নেতৃবৃন্দ জেলা শহরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সভা করে তিন দফা দাবি জানিয়ে ৪৮ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দেয়।

আরো পড়ুন