নালিতাবাড়ীতে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন দুদক কর্মকর্তা আবু সাঈদ

অনলাইন ডেস্ক অনলাইন ডেস্ক

সৃষ্টিবার্তা ডটকম

প্রকাশিত: অক্টোবর ৯, ২০১৯

শেরপুর প্র‌তি‌নি‌ধি:শেরপু‌রের নালিতাবাড়ী উপজেলার গোবিন্দনগর গ্রামে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) পরিচালক এবং নালিতাবাড়ীর সন্তান মো. আবু সাঈদের (৫২)।

বুধবার (৯ অক্টোবর) রাত ৯টার দিকে তাওয়াকুল্লিয়া মাদ্রাসা মাঠে তার জানাযা শেষে গোবিন্দনগর সামাজিক গোরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।

আবু সাঈদের জানাযা নামাজের সময় হাজারো মানুষের ঢল নামে। তার মৃত্যুতে নালিতাবাড়ীতে শোকের ছায়া নেমেছে। বুধবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলায় গোবিন্দনগন গ্রামের তার নিজ বাড়িতে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

পরিবার সূত্রে জানা গেছে, মো. আবু সাঈদ দুদকের অনুসন্ধান ও তদন্ত-২ বিভাগের পরিচালক হিসেবে কর্মরত ছিলেন। দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) পরিচালক মো. আবু সাঈদ মঙ্গলবার পূজার ছুটিতে সকাল ১১টায় স্ত্রী ও একমাত্র মেয়েকে নিয়ে নিজ বাড়িতে আসেন। তিনি গ্রামে একটি বাড়ি নির্মাণ করেছেন। ওই বাড়ি রাত্রী যাপন করেন। সকাল সাড়ে ১০টার সময় গোসল করতে বাথ রুমে ডুকেন। হঠাৎ বাথ রুমে পরে যাওয়ার শব্দ হয়। এসময় তার স্ত্রী সন্তান ও আত্মিয় স্বজনদের ডাকে কোন সাড়া দিচ্ছিলেন না। তাই স্বজনরা বাথরুমের দড়জা ভেঙ্গে তাকে উদ্ধার করে নালিতাবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। পরে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন। আজ রাত ৯টার দিকে নিজ বাসভবনে মরহুমের জানাযা অনুষ্ঠিত হবে।
মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক কন্যা সন্তান ভাই বোন আত্মীয়স্বজনসহ অনেক গুণগ্রাহী রেখে গেছে। তার মৃত্যু দুদকে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

এলাকাবাসী জানান, আবু সাঈদ একজন সৎ কমকর্তা ছিলেন। যখনই কোন সাহায্যের জন্য যেতে তখনই তিনি চেষ্টা করেন সাহায্য করার।

প্রসঙ্গগত, মো. আবু সাঈদ ১৯৯৫ সালে দুদকের সহকারী পরিচালক হিসেবে যোগদান করেন। ২০১৫ সালে পদোন্নতি পেয়ে পরিচালক হন।